সারাদেশ

খাগড়াছড়িতে ঠিকাদার সেলিমের বিরুদ্ধে অবৈধভাবে ভূমি দখলের অভিযোগ

দীঘিনালা প্রতিনিধি :: পার্বত্য খাগড়াছড়ি জেলার প্রভাবশালী ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান মেসার্স সেলিম এন্ড ব্রাদার্স এর স্বত্বাধিকারী মোঃ সেলিম’র বিরুদ্ধে অস্ত্র ঠেকিয়ে অবৈধভাবে ভূমি দখলের অভিযোগ করা হয়েছে।

অবৈধভাবে ভূমি দখল,পাহাড় কাটা, ইটভাটায় গাছ পোড়ানো সহ রাবার বাগানের নাম করে বিভিন্ন ব্যক্তির জমি-জমা দখলের অভিযোগ রয়েছে মোঃ সেলিম’র বিরুদ্ধে।

দীঘিনালা উপজেলার জামতলী এলাকার আব্দুল মোত্তালেব’র পূত্র মোঃ রফিকুল ইসলাম অভিযোগ করে বলেন” আমি মোঃ সেলিমের সাথে জমি ক্রয় করে মৌখিক চুক্তি মোতাবেক অর্থ লেনদেন করি, লেনদেন মোতাবেক আমি বিভিন্ন লোকের কাছ থেকে জমি জায়গা বিক্রয় সূত্রে সেলিমের অনূকূলে বিক্রিত জমির ভোগদখল বুঝাইয়া দেই৷ এমতাবস্থায় সেলিম আমার কাছে পাওনা টাকা দাবী করে খাগড়াছড়িতে তার বাড়িতে ডেকে নিয়ে জোড় পূর্বক ভাবে হাত-পা বেঁধে পিস্তল ঠেকিয়ে ২৫০ টাকার স্টাম্পে স্বাক্ষর নেয়, আমি স্বাক্ষর না দিতে চাইলে আমাকে মেরে ফেলার হুমকি দেয়। জীবন বাঁচার তাগিদে ঐ অঙ্গীকার নামা স্ট্যাম্প দলিলে স্বাক্ষর দিতে বাধ্য হই। উক্ত জমির মূল্য ১০০০ টাকা শতক নির্ধারন করা হলেও ২০০ টাকা শতক নির্ধারিত করে৷ এতে বিবাধী আমার কাছে ৫০ লক্ষ টাকা প্রাপ্তি দাবী করিয়া আমার স্বাক্ষরিত ৫ টি চেক গ্রহন করে।

তিনি আরোও বলেন “আমি উক্ত টাকা পরিশোধ পরও সে আমার সম্পত্তি দখল করতে তার লোকজন দিয়ে আমাকে প্রান নাশের হুমকি দিলে আমি সেলিমের বিরুদ্ধে আমি ও আমার পরিবারের সার্বিক নিরাপত্তায় দীঘিনালা থানায় সাধারন ডায়েরী করি৷ সাধারন ডায়েরী নং-১১৭৬/২৮-১১-১৯। এবং বিভিন্ন সরকারী দপ্তরে তার বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করি৷
এরপরও প্রতিনিয়ত আমাকে বারবার প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে অভিযোগ প্রত্যাহার করতে বললে এবং আমার জমি জায়গা দখলের চেষ্টা করলে সেলিমের বিরুদ্ধে আমি মামলা করি। বিবিধ মামলা নং-১৫৫/২০১৯ যা বর্তমানে চলমান।”

এছাড়াও রশিক নগরের মোঃ জালাল উদ্দীন’র পূত্র মোঃ মাহাবুব আলমের(৪৫) ৭২৫ নং হোল্ডিং এ ৪.৭০ একর ও ১৮৫ নং হোল্ডিং এ ৪.৭৭ একর সর্বমোট ৯.৪৭ একর জায়গা দখলের চেষ্টা করলে সেলিমের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। মামলা নং-১৬৩/১৭-১২-১৯ ইং

একইভাবে উত্তর রশিক নগরের মৃত আবদুল জব্বারের পূত্র মোঃ কালু মিয়া(৪৫) (সাবেক মেম্বার)’র ৪৩৫ নং হোল্ডিং এ ৪.২৫ একর ও ৫২৫ নং হোল্ডিং এ ৪.৭৭ একর আঞ্চলিক দলিল মূলে ক্রয়কৃত জমি দখলের চেষ্টা করলে সেলিমের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। মামলা নং- ১৬৭/২২-১২-১৯ইং

এবং পশ্চিম বেতছড়ির মৃত আদম আলীর পূত্র মোঃ সিরাজুল ইসলামের (৬০) ২.০০ একর জমি দখলের চেষ্টা করলে তিনিও সেলিমের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। মামলা নং-১৬৫/২২-১২-১৯ইং

এ বিষয়ে মেসার্স সেলিম এন্ড ব্রাদার্স এর স্বত্বাধিকারী মোঃ সেলিম বলেন” আমি বিভিন্ন মালিকদের কাছ থেকে নগদ অর্থ দিয়ে জমি ক্রয় করে নিয়েছি। আমার নামে যে অভিযোগ করা হয়েছে তা সম্পূর্ন মিথ্যা ও বানোয়াট।”

বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশন দীঘিনালা উপজেলা শাখার সহ-সভাপতি এফ এম আলমগীর মিয়া বলেন” মোঃ সেলিমের বিরুদ্ধে আমাদের নিকট বেশ কয়েকটি অভিযোগ রয়েছে৷ আমরা অভিযোগের সত্যতা যাচাই করছি। ঘটনা সত্য হলে প্রশাসনের নিকট আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের অনুরোধ করবো।”

১ নং মেরুং ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ রহমান কবির রতন বলেন “ভূমি দখলের বিষয়টি আমার জানা নেই।”

দীঘিনালা উপজেলা ভূমি অফিসে যোগাযোগ করা হলে এ বিষয়ে কেউ কথা বলতে রাজি হননি।

দীঘিনালা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ উল্লাহ্ বলেন “মোঃ সেলিম’র বিরুদ্ধে ভূমি দখলের বিষয়টি আমার নিকট অভিযোগ করা হয়েছে, ঘটনা সত্য হলে আমরা আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করবো।”

Show More

MSKnews24.com desk

জনপদে জনগণের কণ্ঠস্বর

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close
Close